ই-কমার্স নিয়ে অনেকেই অনেক আইডিয়া নিয়ে আমার সঙ্গে আলোচনা করেন। কেউ তাদের আইডিয়া গোপন রাখতে অনুরোধ করেন কেউ আবার সেই আইডিয়া নিয়ে পরামর্শ চান এবং আমি স্কাইপ আড্ডাতে চলে যেতে বলি যেখানে আফজাল ভাই, লিটন ভাই, সাকিব ভাই, নাফিস ভাই, রাজু ভাই এর মত ৮-১০ জন মিলে পরামর্শ দেন। যাই হোক নানা ধরনের পন্য নিয়ে তারা আলোচনা করেন কিন্ত আজ পর্যন্ত দেখলাম না কেউ শিক্ষা বা লেখাপড়া নিয়ে ই-কমার্স সেবা দিতে আগ্রহী। অথচ বাংলাদেশে শিক্ষাকে সবচেয়ে নিরাপদ বিনিয়োগ বলে মনে করা হয়।
তাছাড়া আমার মনে হয় যে ঢাকার লোকের থেকে অনলাইনে শিক্ষার দরকার ঢাকার বাইরের লোকের আরও বেশি। ঢাকাতে অলিতে গলিতে স্কুল, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়, কোচিং সেন্টার, রিসার্চ সেন্টার অনেক কিছু আছে। কিন্তু ঢাকার বাইরে ছোট জেলা শহরে এসব কিছুর অভাব। আমার মনে হয় বিশাল একটা বাজার পড়ে আছে আমাদের ই-কমার্স কোম্পানি গুলোর জন্য। তবে শিক্ষার ক্ষেত্রে গুণগত মান নিয়ন্ত্রণ অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। ই-লার্নিং, ই-এডুকেশন, ই-ট্রেইনিং, অনলাইন টিচিং, অনলাইন কোচিং, অনলাইন টিউটরিং, অনলাইন রিসার্চ ইত্যাদি খাতে আসলেই অনেক বড় একটা বাজার পড়ে আছে বলে আমার মনে হয়।
তবে একই সঙ্গে এও বলতে চাই যে এদিকে যারা আসবেন তারা বুঝে শুনে আসবেন এবং গুণগত মানের কথা চিন্তা করে রাখবেন আগে থেকেই। জ্ঞান, ধৈর্য ও নিবেদিতপ্রাণ মানসিকতা থাকতে হবে। তবে আসলেই শত শত কোটি টাকার বাজার পড়ে রয়েছে এ দিকে।
এ ব্যপারে আপনার মত কি?
February 2015

ই-কমার্স ও শিক্ষা